ইউনিসেফের শুভেচ্ছাদূতের পদ থেকে প্রিয়াংকা চোপড়ার অপসারণ দাবি

ইউনিসেফের শুভেচ্ছাদূতের পদ থেকে প্রিয়াংকা চোপড়ার অপসারণ দাবি

0
SHARE

ডেইলি নিউজ ডেস্ক রিপোর্ট॥ পুলওয়ামায় হামলার জেরে পাকিস্তানে বিমান হামলার ঘটনায় ভারতীয় সেনাবাহিনীর প্রশংসা করায় ইউনিসেফের শুভেচ্ছাদূতের পদ থেকে বলিউড তারকা প্রিয়াংকা চোপড়ার অপসারণের দাবি উঠেছে। ভারতীয় গণমাধ্যম এনডিটিভির এক প্রতিবেদনে এ কথা বলা হয়েছে।

জানা গেছে, পাকিস্তানে বিমান হামলার ঘটনায় ইউনিসেফের শুভেচ্ছাদূত হিসেবে প্রিয়াংকা চোপড়া স্বাভাবিকভাবেই নিরপেক্ষ অবস্থানে থাকবেন। কিন্তু তা না করে ওই হামলার ঘটনায় ভারতীয় বিমানবাহিনীর প্রশংসা করে টুইট করেছেন, যা একজন শুভেচ্ছাদূতের জন্য বেমানান।

উল্লেখ্য, প্রিয়াংকা ২৬ ফেব্রুয়ারি টুইট করেন, “জয় হিন্দ #ইন্ডিয়ান আর্মডফোর্স

আর এ কারণেই বলিউডের এ অভিনেত্রীকে ইউনিসেফের শুভেচ্ছাদূতের পদ থেকে অপসারণের জন্য অনলাইন পিটিশন শুরু করে পাকিস্তান।

অনলাইন প্ল্যাটফর্মের ‘আওয়াজে’র (Avaaz) মাধ্যমে তাকে ওই বিশেষ পদ থেকে সরিয়ে দেয়ার আবেদন করা হতে থাকে।

প্রিয়াংকার বিরুদ্ধে অভিযোগ, শুভেচ্ছাদূত হিসেবে তার এ ঘটনায় নিরপেক্ষ অবস্থান নেয়ার কথা, যা তিনি করেননি।

ওই পিটিশনে লেখা হয়েছে- দুই পারমাণবিক শক্তির মধ্যে যুদ্ধ শুধু ধ্বংস ও মৃত্যুই নিয়ে আসতে পারে। ইউনিসেফের শুভেচ্ছাদূত হিসেবে প্রিয়াংকা চোপড়ার উচিত ছিল এই অবস্থায় নিরপেক্ষ ও শান্তিপূর্ণ অবস্থান নেয়ার। তার আর ওই শুভেচ্ছাদূতের পদে থাকার যোগ্যতা নেই।

জাতিসংঘ ও ইউনিসেফকে ট্যাগ করা এই পিটিশনটি ৫০০০-এর মধ্যে ৪২০০-রও বেশি স্বাক্ষর পেয়েছে।

প্রসঙ্গত ২০১৬ সালে বিশ্বব্যাপী ইউনিসেফের শুভেচ্ছাদূত হিসেবে প্রিয়াংকা চোপড়া নিযুক্ত হন। তিনি ১০ বছরেরও বেশি সময় ধরে ইউনিসেফের সঙ্গে যুক্ত ছিলেন।

LEAVE A REPLY